ফেব্রুয়ারি ২৩, ২০২৪ ৩:০৮ পূর্বাহ্ণ

রোনালদোর আগে মেসিকে চেয়েছিল আল নাসর

চট্টলার কণ্ঠ নিউজ ডেস্ক

ফরাসি এই কোচ সৌদি ক্লাব আল নাসরের দায়িত্বে আছেন। কয়েক দিন আগে এই ক্লাবে যোগ দিয়েছেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। কোথায় তাঁকে নিয়ে মাতবেন, তা নয়, রোনালদোর চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীকে নিয়ে গার্সিয়া এমন কথা বলেছেন যে পর্তুগিজ তারকার মেজাজ বিগড়ে যেতে পারে।

গত মাসে আর্জেন্টিনাকে বিশ্বকাপে জেতানো লিওনেল মেসিকে নাকি দলে টানতে চেয়েছিলেন গার্সিয়া। প্রথমে তাঁকে কেনার ইচ্ছা ছিল আল নাসরের এই কোচের। পিএসজি তারকাকে যেহেতু পাওয়া যায়নি, তাই রোনালদোকে কেনা হয়েছে—মজা করে বললেও গার্সিয়ার কথায় এমন সুর শুনে পর্তুগিজ ফরোয়ার্ডের মেজাজ ঠান্ডা থাকাটাই বরং অস্বাভাবিক হবে।
সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন টিভি চ্যানেল আল এখবারিয়া নিউজ জানিয়েছে, আল নাসরে প্রতিবছর ২১ কোটি মার্কিন ডলার পাবেন রোনালদো। পিএসজিতে মেসির যা বেতন, তার চেয়ে পাঁচ গুণ বেশি বার্ষিক রোজগার হবে ৩৭ বছর বয়সী পর্তুগিজ তারকার।

রোনালদোর এই ক্লাবে যোগ দেওয়া নিয়ে সংবাদকর্মীদের সঙ্গে কথা বলার সময় মজা করে এমন কথা বলেন গার্সিয়া, ‘প্রথমে আমি মেসিকে কেনার চেষ্টা করেছি।’ তবে মন্তব্যটি যে রসিকতা করে বলেছেন, সেটি বোঝা গেছে কথাটি বলার কয়েক সেকেন্ড পর। মন্তব্যটি করার কয়েক সেকেন্ড পরই হো হো করে হেসে ফেলেন গার্সিয়া।
গত শুক্রবার রোনালদোকে আনুষ্ঠানিকভাবে নিজেদের খেলোয়াড় হিসেবে পরিচয় করিয়ে দেয় আল নাসর। ২৭টি শিরোপাজয়ী সৌদি আরবের ঘরোয়া টুর্নামেন্টে অন্যতম সফল এই ক্লাবের হলুদ-নীল রঙের জার্সি হাতে ক্যামেরার সামনে দাঁড়ান রোনালদো। বিশ্বকাপ চলাকালে পারস্পরিক সমঝোতার ভিত্তিতে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের সঙ্গে চুক্তি ছিন্ন করেন তিনি।

ব্রিটিশ সংবাদকর্মী ও টিভি ব্যক্তিত্ব পিয়ার্স মরগানকে বিতর্কিত সাক্ষাৎকার দেওয়ার পর রোনালদোর ইউনাইটেড ছেড়ে যাওয়া এক রকম নিশ্চিতই হয়ে গিয়েছিল।রোমা, মার্শেই ও লিওঁর ক্লাবের দায়িত্ব পালন করা গার্সিয়া গত জুনে আল নাসর কোচের দায়িত্ব নেন। ইউনাইটেড কোচ এরিক টেন হাগের সঙ্গে রোনালদোর সম্পর্ক মোটেই ভালো ছিল না। কিন্তু রোনালদো আসার আগে গার্সিয়া মন্তব্য করেছিলেন, ‘গ্রেট খেলোয়াড়দের সামলানো সবচেয়ে সহজ।’ স্প্যানিশ সংবাদমাধ্যম ‘এএস’কে গার্সিয়া তখন বলেছিলেন, ‘ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর মতো গ্রেট খেলোয়াড়কে যেকোনো কোচই পেতে চাইবেন। ২০২১ সালের নভেম্বরে আমি কিন্তু ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যোগ দেওয়ার খুব কাছাকাছি পৌঁছে গিয়েছিলাম। কিন্তু ওরা রালফ রাংনিককে বেছে নেয়। আমি সব সময় ভেবেছি, গ্রেট খেলোয়াড়দের সামলানোই সবচেয়ে সহজ। রোমায় ফ্রান্সেসকো টট্টির ক্ষেত্রে আমার এই অভিজ্ঞতা হয়েছে। এমন খেলোয়াড়েরা খুব বুদ্ধিমান হয়।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn