জুলাই ১৯, ২০২৪ ২:৩৪ পূর্বাহ্ণ

অদম্য বাংলাদেশ মহিলা ফুটবল দল ভারতকে 3 – 0 গোলে উড়িয়ে দিলো

রেফারির বাঁশির শেষ হতে না হতেই সবাই এক সঙ্গে মাঠে মাথা নোয়ালেন। এরপর মাথা তুলে ভোঁ-দৌড়। মহিলা ফুটবলে এ দিনটির অপেক্ষায় ছিলেন তারা। সাফের আসরে ভারতকে হারিয়েছেন সাবিনারা। গতকাল নেপালের কাঠমান্ডুর দশরথ স্টেডিয়ামে ভারতকে ৩-০ গোলে হারিয়েছে বাংলাদেশ। এই জয়ে বাংলাদেশ গ্রুপ পর্বে তিন ম্যাচে পূর্ণ নয় পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়েছে। ভারতকে হারানোয় বাংলাদেশ সেমিফাইনালে অপেক্ষাকৃত দুর্বল ভূটানকে পাচ্ছে প্রতিপক্ষ হিসেবে। আর স্বাগতিক নেপালের প্রতিপক্ষ ভারত। সাফের আসরে বাংলাদেশের বড় প্রতিপক্ষ নেপাল ও ভারত। বিশেষ করে ভারতের বিপক্ষে জয় বাংলাদেশের জন্য ছিল খুব অরাধ্য। সেই অসাধ্য সাধন করেছেন গতকাল সাবিনারা। পুরো ম্যাচে বাংলাদেশ দাপটের সঙ্গে খেলেছে। ভারত সেভাবে নিয়ন্ত্রণ করতে পারেনি খেলায়। ম্যাচের প্রথমার্ধে দুই গোলে লিড নেয় বাংলাদেশ। দ্বিতীয়ার্ধের ১৫ মিনিটের মধ্যে আরেক গোল করে বাংলাদেশ ম্যাচটা নিয়ে যায় ভারতের ধরাছোঁয়ার বাইরে। ম্যাচের বাকি সময় ভারত গোলের চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়েছে। বাংলাদেশ নারী ফুটবলে ভারতের বিপক্ষে এত স্বাচ্ছন্দ্যে খেলার ঘটনা ইতোপূর্বে নেই খুব একটা।
সিনিয়র পর্যায়ে নারী ও পুরুষ মিলিয়ে ভারতকে ৩ গোলের ব্যবধানে হারানোর রেকর্ডও খুব একটা নেই। সেই হিসেবে সাবিনারা গতকাল নতুন মাইলফলকই স্থাপন করেছেন। এর আগে ম্যাচের ১২ মিনিটে সিরাত জাহান স্বপ্নার গোলে বাংলাদেশ লিড নিয়ে। মিডফিল্ড থেকে অধিনায়ক সাবিনা খাতুন থ্রু বাড়ান। এক পা ঘুরে স্বপ্না বল পান। বক্সের মধ্যে দারুণভাবে বলের নিয়ন্ত্রণ নিয়ে আগুয়ান গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন। দশ মিনিট পর বাংলাদেশ ব্যবধান দ্বিগুণ করে। এবার গোল করেন কৃষ্ণা রাণী সরকার। থ্রো ইন থেকে বাংলাদেশ আক্রমণ রচনা করে। কৃষ্ণা বক্সের মধ্যে বলের নিয়ন্ত্রণ রাখেন। ডিফেন্ডার বাঁধা দেয়ার চেষ্টা করলেও কৃষ্ণা প্লেসিংয়ে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন। দ্বিতীয়ার্ধে আবার সেই সাবিনা-স্বপ্নার কম্বিনেশনেই গোল পায়। এবার সাবিনার বাড়ানো বলে স্বপ্না বক্সের মধ্যে কোনাকুনি শটে নিজের জোড়া গোল ও দলের হয়ে তৃতীয় গোল করেন। এই গোলই বাংলাদেশকে এনে দেয় গ্রুপ শ্রেষ্ঠত্ব।

Share on facebook
Facebook
Share on twitter
Twitter
Share on linkedin
LinkedIn